অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে কবিতা | জীবনানন্দ দাশের শ্রেষ্ঠ কবিতা | জীবনানন্দ দাশ

অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে কবিতাটি কবি জীবনানন্দ দাশ এর “জীবনানন্দ দাশের শ্রেষ্ঠ কবিতা ” সংকলনের অংশ

 

অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে কবিতা | জীবনানন্দ দাশের শ্রেষ্ঠ কবিতা | জীবনানন্দ দাশ
কবি জীবনানন্দ দাশ, Poet Jibanananda Das

অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে – জীবনানন্দ দাশ

তারা সব মৃত ।
ইতিহাসে তবুও তাদের 
কেবল বাঁচার প্রয়োজনে ব'লে
তাদের উত্তর অধিকার
কোনো কোনো মানবের হাতে আসে।
তারা ম'রে গেছে ।
সবারই জীবনে আলো প্রয়োজন জেনে 
সকলের জন্য স্পষ্ট পরিমিত সূর্য পেতে গিয়ে '
তবুও বিলোল অন্ধকারে-
তারা আজ পৃথিবীর নিয়মে নিরব।
এই অই ব্যাক্তির জীবনে 
সুসময় শুভ অর্থ পরিচ্ছন্নতার
প্রয়োজনে র'য়ে গেছে জেনে নিয়ে তারা,
তবুও, ব্যক্তির চেয়ে ঢের বেশি গহন স্বভাবে উৎসারিত 
জীবন-বিসারী ক্ষুব্ধ জনতাসমুদ্র দেখেছিল ।
সেইখানে একদিন মানুষের কাহিনী জন্মেছে;
বেড়ে গেছে;
কাহিনীর মৃতু হয় নাই;
কাহিনী ক্রমেই এতিহাস।
জীবনধারণে-জানি-তবু-
জীবনকে ভালো ক'রে নিতে গিয়ে 
ইতিহাস কেবলি আয়ত হ'য়ে আলো পেতে চায়।
নিজেদের আবছা বাক্তির মত মনে করে তারা,
ইতিহাস স্পষ্ট ক'রে দিতে গিয়ে তবু,

আজ এই শতকের শুন্য হাতে শূন্যতার চেয়ে বেশি দান
দিয়েছিল হয়ত বা ।
দেয় নি কি?
আজ এই হেমন্তের অন্ধকার রাতে,
আমরা বিহুল বাক্তি,-তুমি-আমি-আরো ঢের লোক;
মানুষ-সমুদ্রে ঠেকে অন্ধকার বিম্বের মতন 
তবুও সবার আগে নিজের আকাশ 
নিজের সাহস স্বপ্ন মকরকেতন
আপনার মননশীলতা
গণনার প্রিয় জিনিসের মত মনে ভেবে নিয়ে 
অন্য সকলের কথা ভুলে যাই 

সকলের জীবনের শুভ উদযাপনের চেষ্টায়
সূর্যের সুনাম আরো বড়  ক'রে দিতে গিয়ে তারা
নিজেদের বিষণ্ণ সূর্যের কথা ভুলে গিয়েছিল ।
মানবের কথা বিরচিত হ'য়ে চলে-
সেই সব দূর আতুর ভঙ্গুর সুমেরীয় দিন থেকে আজ 
জেনিভায়,-মস্কো-ইংল্যান্ড-আতলান্তিক চার্টারে,
ইউ-এন-ওয়ের ক্লান্ত  প্রৌঢ়তায়-সতর্কতায়,
চীন-ভারতের-সব শীত পৃথিবীর 
নিরাশ্রয় মানবের আত্মার ধিক্কারে-আর্তর্দানে।

হেমন্তের রাত আজ ক্ষুব্ধতায়-জনতায়-নর্দমাইয়-ক্লেদে
লোভাতুর ক্রূর রাষ্ট্রসমাজের রতির নৈরাজ্যে 
অসম্ভব অন্ধ মৃতুতে 
ফুরানো ধানের ক্ষেতে তবু
মৃত পঙ্গপালদের ভিড়ে।
নরকের নিরাশার প্রয়োজনে র'য়ে গেছে জেনে, তবু বলে;
গভীর-গভীরতর তবুও জীবন- 
নিজেদের দীনাত্মা ব্যাক্তির মত মনে করে ওরা 
সকলের জন্য সময়ের 
সুন্দর, সীমিত আলো সঞ্চারিত ক'রে  দিতে গিয়ে 
প্রান দিয়েছিল  ।

জীবনধারণে, তবুও জীবনের আরো বর্ণনীয়
ব্যাপ্তির ভিতর দিয়ে আরো সুস্থ-আরো প্রিয়তর 
 ধারণায় ইতিহাস,- ইঙ্গিতের আরো স্পষ্টতায় ;
তবে তা' উজ্জ্বল হলে জীবন তবুও 
নিরালোক হ'য়ে রবে কত দিন? 
কত দিন হতে পারে ?

 

অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে কবিতা | জীবনানন্দ দাশের শ্রেষ্ঠ কবিতা | জীবনানন্দ দাশ

 

আরও দেখুনঃ

 

অনেক মৃত বিপ্লবী স্মরণে কবিতা | জীবনানন্দ দাশের শ্রেষ্ঠ কবিতা | জীবনানন্দ দাশ

মন্তব্য করুন